পৃথিবীর কক্ষপথ অতিক্রম করলো বিধ্বংসী গ্রহাণু

198
Asteroid

বর্তমান সময়ে সারা বিশ্বের মানুষ প্রতিটি মুহূর্ত পার করছে করোনা ভাইরাস আতঙ্কে। করোনা আতঙ্কের মধ্যেই পৃথিবীবাসী অল্পের জন্য বেঁচে গেলো বিশাল এক বিপদ থেকে। কেননা ২৯ এপ্রিল পৃথিবীর অনেকটা কাছ ঘেঁষেই বেরিয়ে গেছে বিশাল এক গ্রহাণু।

বুধবার সকালে পৃথিবী থেকে প্রায় ৬৩ লাখ কিলোমিটার (৩৯ লাখ মাইল) দূর দিয়ে চলে গেছে বিশাল গ্রহাণুটি। আনুমানিক ১.১ থেকে ২.৫ মাইল ব্যাস বিশিষ্ট গ্রহাণুটি আকারে মাউন্ট এভারেস্টের প্রায় অর্ধেক। নিরাপদ দূরত্বে থাকায় পৃথিবীতে এর কোনও প্রভাব পড়েনি। যদিও ঘটনার সময় মহাকাশে সতর্ক নজর রেখেছিলেন নাসার বিজ্ঞানীরা। কিন্তু মহাজাগতিক কোন কারনে গ্রহাণুটি যদি পৃথিবীকে স্পর্শ করতো, তবে গোটা মানবজাতি বিলুপ্ত হয়ে যেতে পারত বলে জানিয়েছেন বিজ্ঞানীরা।

১৯৯৮ সালে নাসার জেট প্রোপালসন ল্যাবরেটরি প্রথমবারের মতো গ্রহাণুটি খুঁজে পাওয়ায় এর নাম দেয়া হয় ১৯৯৮ ওআর২। সম্প্রতি অবজারভেটরিতে ধরা পড়া এর একটি ছবিও প্রকাশ করা হয়েছে। বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, অন্তত ২০৭৯ সাল পর্যন্ত গ্রহাণুটি নিয়ে মানুষের চিন্তার কিছু নেই। কারণ, এর আগে সেটি আর পৃথিবীর ধারেকাছে ঘেঁষবে না। আর ২০৭৯ সালের দিকে আসলেও পৃথিবী থেকে চাঁদের প্রায় চারগুণ দূরত্ব দিয়ে চলে যাবে সেটি।

Facebook Comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here