আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে যাবে জামায়াত

0
Jamaatস্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: আব্দুল কাদের মোল্লার ফাঁসির রায় বহাল রেখে সুপ্রিমকোর্টের দেয়া পূর্ণাঙ্গ রায় চ্যালেঞ্জ করতে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে (আইসিসি) যাবে জামায়াতে ইসলামী।

বৃহস্পতিবার দলের ভারপ্রাপ্ত আমির মকবুল আহমাদ এক বিবৃতে এ কথা জানান।

একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধে জড়িত থাকার দায়ে জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল আব্দুল কাদের মোল্লার ফাঁসির দণ্ডাদেশের সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশিত হয়েছে। এই রায়কে জুডিশিয়াল মার্ডারের (বিচারিক হত্যা) ষড়যন্ত্র বলে আখ্যায়িত করেছে জামায়াত।

এ রায়ের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সবার বিরুদ্ধে অভিযোগ নিয়ে নেদারল্যান্ডসের হেগে অবস্থিত আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে মামলা করার ঘোষণা দিয়েছে জামায়াত।

বিবৃতিতে মকবুল আহমাদ বলেন, ‘কাদের মোল্লার মামলায় মিথ্যা মোমেনা বেগম সাজিয়ে অপরিচিত মহিলাকে দিয়ে যে সাক্ষ্য দেয়ানো হয়েছে তা চরম জালিয়াতি। গোটা বিচার প্রক্রিয়ায় জালিয়াতির আশ্রয় নেয়া হয়েছে। এখানে যথাযথ আইনি প্রক্রিয়া অনুসরণ করা না হলে তার সাথে সরকার, তদন্ত সংস্থা, প্রসিকিউশনসহ যে বা যারা সম্পৃক্ত আছে তাদের প্রত্যেকের বিরুদ্ধে আমরা আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে মামলা দায়ের করতে বাধ্য হবো।’

সরকারকে চ্যালেঞ্জ করে তিনি বলেন, ‘মোমেনা বেগম আদালতে সাক্ষ্য দিয়েছেন, তার ভিডিও ক্লিপ আদালতে সংরক্ষিত আছে। সেই ভিডিও ক্লিপ এবং প্রকৃত মোমেনা বেগমকে মিডিয়ার সামনে উপস্থিত করা হোক। তাহলেই স্পষ্ট হয়ে যাবে কাদের মোল্লাকে হত্যা করার জন্য সরকার বিচারের নামে কত বড় জালিয়াতির আশ্রয় নিয়েছে। আমরা বলতে চাই, জালিয়াতির মাধ্যমে নির্দোষ আব্দুল কাদের মোল্লাকে জুডিশিয়াল কিলিং করে তাকে হত্যার পরিণতি হবে ভয়াবহ।’

তিনি আরো বলেন, ‘এটর্নি জেনারেলের কার্যালয় থেকে বারবার বলা হচ্ছে, আব্দুল কাদের মোল্লা রিভিউ করার সুযোগ পাবেন না। সরকারের সিদ্ধান্তে রায় কার্যকর হবে। এই বক্তব্য অসৎ উদ্দেশ্যপ্রণোদিত, বিভ্রান্তিকর এবং বেআইনি। সুপ্রিমকোর্টের বিধি অনুযায়ী, রায়ের সার্টিফায়েড কপি পাওয়ার ৩০ দিনের মধ্যে সংবিধানের ১০৫ অনুচ্ছেদ মোতাবেক এই রায়ের বিরুদ্ধে রিভিউ পিটিশন দাখিলের সুযোগ রয়েছে। সংবিধান অনুযায়ী কাদের মোল্লা মহামান্য সুপ্রিমকোর্টে রিভিউ পিটিশন দায়ের করবেন। রিভিউ পিটিশন গ্রহণ বা খারিজের পূর্ণ এখতিয়ার আপিল বিভাগের। এই ব্যপারে সরকার বা এটর্নি জেনারেলের পক্ষ থেকে যে বক্তব্য রাখা হচ্ছে, তা অসৎ উদ্দেশ্যে।’

এইচ এন

Comments
Loading...