নারীরা দিল্লি ছাড়ছেন

0 ৮৩

image_73117_0নয়াদিল্লি: ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লির নিরাপত্তা ব্যবস্থার নগ্ন চিত্রটা আরো একবার খুব স্পষ্টভাবে সামনে চলে এল। দিল্লিতে বসবাসকারী ৪৩ শতাংশ কর্মজীবী নারী এতটাই নিরাপত্তার অভাবে ভুগচ্ছেন যে, তারা দিল্লি ছেড়ে অন্য শহরে চলে যেতে চান। এ জন্যে কম বেতনের চাকরির সঙ্গে আপোষ করতেও তারা রাজি। সম্প্রতি এক সমীক্ষায় উঠে এসেছে এমন তথ্য।

‘পিএইচডি চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজ নামের একটি প্রতিষ্ঠান দিল্লিতে কর্মরত নারী, ছাত্রী ও চাকরি প্রত্যাশীদের ওপর এ সমীক্ষা চালায়। এ সমীক্ষায় অধিকাংশ নারী জানান, দিল্লিতে প্রতি মুহূর্তে নিরাপত্তাহীন ভয়াবহ এক পরিবেশের মধ্যে দিয়ে তাদের দিন কাটাতে হয়।
মোট তিন হাজার ৪০০ নারীর ওপর ‘ওমেন সেফটি ইন দিল্লি: ইস্যুজ অ্যান্ড চ্যালেঞ্জ টু অ্যামপ্লয়মেন্ট’ শিরোনামে এ সমীক্ষা চালানো হয়।
এ সমীক্ষা অনুযায়ী ৪৩ শতাংশ কর্মরত নারী দ্বিধাহীন ভাবে জানান দিল্লির নিরাপত্তা হীনতা তাদের এতটাই ভাবায় যে, কম বেতনের চাকরি নিয়ে দেশের অন্য কোনো শহরে চলে যেতে তাঁরা প্রস্তুত। নিরাপত্তার জন্য কম উপার্জনেও তারা রাজি।

এ সমীক্ষায় ৮০ শতাংশ নারী জানায়, তারা দিনের শিফটে কাজ সেরে যত দ্রুত সম্ভব বাড়ি চলে যেতে চান। কারণ রাজধানীতে রাতের অন্ধকার বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে কমতে থাকে নিরাপত্তা।
মাত্র চার শতাংশ নারী জানায়, তারা রাতের শিফটে কাজ করতে অসুবিধা বোধ করেন না।
৬৪ শতাংশ নারী জানায়, দিল্লিতে নারীদের নিরাপত্তা এতটাই কমেছে যে তারা বহুক্ষণ ধরে বাইরে কাজ করতে ভয় পান। ফলে তাদের উৎপাদনশীলতা কমে যায়। সূত্র: ওয়েবসাইট।

Comments
Loading...