নীতিমালা করে কন্ঠরোধ করা যাবে না: শিবির

0

Shibir_Member_Applicant-300x207ঢাকা: ইসলামী ছাত্রশিবিরের কেন্দ্রীয় সভাপতি আবদুল জব্বার বলেছেন, আওয়ামী সরকার গণমাধ্যমের কণ্ঠরোধ করতে চায়, মানুষের বাক স্বাধীনতা কেড়ে নিতে চায়। কিন্তু তাদের জানা উচিত নীতিমালা করে মানুষের মুখ বন্ধ করা যাবে না। অপশাসন, অনিয়মের বিরুদ্ধে সচেতন জনগণ জোরালো প্রতিবাদ করেই যাবে।

 ছাত্রশিবিরের সদস্যপ্রার্থী সমাবেশে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। রোববার সকালে রাজধানীর এক মিলনায়তনে এই সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

 সংগঠনের কেন্দ্রীয় দপ্তর সম্পাদক নাবিদ আনোয়ারের পরিচালনায় সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন ছাত্রশিবিরের কেন্দ্রীয় সাহিত্য সম্পাদক ইয়াছিন আরাফাত,অর্থ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম, ছাত্র আন্দোলন সম্পাদক শেখ এনামুল কবির,প্রকাশনা সম্পাদক সাজ্জাদ হোসাঈন, প্রচার সম্পাদক মনির আহমেদ , পাঠাগার সম্পাদক মোস্তাক আহমেদ সহ নেতৃবৃন্দ।

 শিবির সভাপতি বলেন, একটি দেশের উন্নয়নের জন্য অবাধ তথ্য প্রবাহ জরুরী বিষয়। বিশ্ব যখন গণতান্ত্রয়নের পথ ধরে তথ্যকে মানুষের আরও কাছে নিয়ে যাচ্ছে, নীতিমালা করে মানুষের মুখ বন্ধ করা যাবে না- শিবির সভাপতি

 আবদুল জব্বার বলেন, আওয়ামী সরকার গণমাধ্যমের কণ্ঠরোধ করতে চায়, মানুষের বাক স্বাধীনতা কেড়ে নিতে চায়। কিন্তু তাদের জানা উচিৎ নীতিমালা করে মানুষের মুখ বন্ধ করা যাবে না। অপশাসন, অনিয়মের বিরুদ্ধে সচেতন জনগণ জোরালো প্রতিবাদ করেই যাবে।

 তিনি সমবেত সদস্যপ্রার্থীদের উদ্দেশ্যে বলেন, সরকারের অন্যায় আচরণের বিরুদ্ধে আপনাদের আরো কৌশলী ও তৎপর হতে হবে। সরকার মানুষের কণ্ঠরোধ করতে চায়, আপনাদেরকে আরো উদ্যোগী হয়ে নির্যাতন-নিপিড়নের তথ্য ও সরকারের সীমাহীন অপকর্মের চিত্র নানা মাধ্যমে জনগণের সামনে তুলে ধরতে হবে। আমরা বিশ্বাস করি, ছাত্রজনতার আন্দোলনের মাধ্যমেই এই সরকারের পতন ঘটবে।

 শিবির সভাপতি ধারাবাহিকভাবে আন্দোলন পরিচালনার পাশাপাশি সংগঠনের কাজ যথাযথভাবে আঞ্জাম দিতে সমবেত সদস্যপ্রার্থীদের প্রতি আহ্বান জানান। দিতে সমবেত সদস্যপ্রার্থীদের প্রতি আহবান জানান।

Comments
Loading...