মায়া ওয়ার্কার্স পাটির এমপি : মমতাজ বেগম একজন পুরুষ : কাজী ফিরোজ রশিদ ও হাজি সেলিম মহিলা

0 ৩১

1398621212.দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা এবং ত্রাণমন্ত্রী ও ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া এমপি (সংসদ সদস্য) নির্বাচিত হয়েছেন ওয়ার্কার্স পার্টি থেকে। বর্তমান এমপি ফোক শিল্পী মমতাজ বেগম একজন পুরুষ। মহিলা হিসেবে দেখানো হয়েছে সংসদ সদস্য কাজী ফিরোজ রশিদ এবং পুরান ঢাকার হাজী সেলিমকে। অনেক এমপি’র নেই কোন ঠিকানা। আশ্চর্যজনক হলেও সত্য যে, দশম জাতীয় সংসদের ওয়েবসাইটের ইংরেজি ভার্সনে জাতীয় নেতৃবৃন্দকে এভাবেই উল্লেখ করা হয়েছে। শুধু তাই নয়, অনেক সংসদ সদস্যের পরিচিতির ক্ষেত্রে উপস্থাপন করা হয়েছে ভুল তথ্য। বেশ কয়েকজনের পেজে নেই ছবি ও পরিচিতিমূলক তথ্য। কয়েকজনের পেজে প্রবেশই করা যায় না। গতকাল রবিবার রাত ৮টায় জাতীয় সংসদের সাইটের  http://www.parliament.gov.bd/index.php/en/mps/members-of-parliament/current-mp-s/list-of-10th-parliament-members-english লিংকে প্রবেশ করে সংসদ সদস্যদের পরিচিতির এমন চিত্রই দেখা যায়। সাইটটিতে প্রবেশের পর পেজের উপরেই লেখা রয়েছে ‘প্লিজ ক্লিক অন পার্লামেন্ট মেম্বারস পিকচার ফর মোর ইনফো (আন্ডার ডেভলপ)।’ এ ব্যাপারে যোগাযোগ করা হলে জাতীয় সংসদের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা বলেন, বিষয়টি শুনলাম। এ ব্যাপারে দ্রুত অ্যাকশন নিচ্ছি।
সাইটটি ভিজিট করে দেখা যায়, বি-বাড়ীয়া-৪ থেকে নির্বাচিত আইনমন্ত্রী এডভোকেট আনিসুল হকের পরিচিতিতে জন্ম তারিখ, শিক্ষাগত যোগ্যতা, পেশা, ঢাকার ঠিকানা ও স্থায়ী ঠিকানার ঘরে কোন তথ্য নেই। ফেনী-১ আসনে জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের সংসদ সদস্য শিরীন আকতার। তিনি ঢাকায় মেয়র প্রার্থী হিসেবে বেশ কিছুদিন প্রচারণাও চালিয়েছেন। সাংস্কৃতিক এবং রাজনৈতিক ব্যাক্তিত্ব হিসেবে তার পরিচিতি থাকলেও তার জন্ম তারিখ এবং শিক্ষাগত যোগ্যতার ঘর খালি রয়েছে। ঢাকা-৬ আসনের জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য কাজী ফিরোজ রশিদ এবং ঢাকা-৭ আসনের স্বতন্ত্র এমপি হাজী মোহাম্মদ সেলিমের পরিচিতির ঘরে সেক্সের স্থানে ফিমেল উল্লেখ রয়েছে। মানিকগঞ্জ-২ আসন থেকে নির্বাচিত আওয়ামী লীগের এমপি ও ফোক গানের শিল্পী মমতাজ বেগমের সেক্সের স্থানে মেইল হিসেবে উল্লেখ রয়েছে। তার জন্ম তারিখ, শিক্ষাগত যোগ্যতা, ঠিকানা, ফোন ও ফ্যাক্স নম্বরের ঘরে কোন কিছু উল্লেখ নেই। সাবেক ফুটবলার আরিফ খান জয় আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে নেত্রকোনা-২ আসন থেকে নির্বাচিত হয়েছেন। তারও ঠিকানা, ফোন ও ফ্যাক্স নম্বর নেই।
চাঁদপুর-২ থেকে নির্বাচিত এমপি ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়ার দল হিসেবে উল্লেখ রয়েছে ওয়ার্কার্স পার্টি অব বাংলাদেশ। তারও শিক্ষাগত যোগ্যতা, ঢাকার ঠিকানা, স্থায়ী ঠিকানা, ফোন ও ফ্যাক্স নম্বরের ঘরে কোন তথ্য নেই। নতুন দল বিএনএফ’র চেয়ারম্যান এস এম আবুল কালাম আজাদেরও কোন ঠিকানা, ফোন ও ফ্যাক্স নম্বর নেই। মুজিবনগর সরকারের অস্থায়ী প্রেসিডেন্ট তাজউদ্দীন আহমদের কন্যা গাজীপুর-৫ থেকে নির্বাচিত সিমিন হোসেন রিমির ঢাকার ঠিকানা এবং ফোন ও ফ্যাক্স নম্বরের ঘর খালি।
মংমনসিংহ-১ এর আওয়ামী লীগ দলীয় এমপি প্রমোদ মানকিনের পেজে প্রবেশ করতে চাইলে সংসদের ওয়েব সাইটটির এডমিন প্যানেলের লগ ইন ও পাসওয়ার্ড চাওয়া হয়। তার কোন ডাটা শো হয় না। অনেক চেষ্টা করেও ঢাকা-১৮ আসন থেকে নির্বাচিত সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এডভোকেট সাহারা খাতুন, সাভারের এনাম ক্লিনিকের কর্ণধার এবং ঢাকা-১৯ আসনের এমপি ডা. মোহাম্মদ এনামুর রহমান, ঢাকা-২০ ও গাজীপুর-১, নরসিংদী-২ ও ৩, নারায়ণগঞ্জ-৩ ও ৪, ফরিদপুর-৪ এবং মাদারীপুর-৩ আসনের এমপিদের পেজে প্রবেশ করা যায়নি।
শরীয়তপুর-৩ আসনের আওয়ামী লীগ এমপি নাহিম রাজ্জাকের পেশা হিসেবে লেখা রয়েছে নট এভেইলেবল। ফোন নম্বর নেই। মেহেরপুর-১ আসনের আওয়ামী লীগ এমপি ফরহাদ হোসেনের পেশা উল্লেখ রয়েছে শিক্ষকতা। কিন্তু তার শিক্ষাগত যোগ্যতার ঘরে কোন তথ্য নেই। জাতীয় পার্টির এমপি ফিরোজ রশিদ একাধিকবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হলেও তার টার্ম এর ঘর খালি। ঠিকানা এবং ফোন, ফ্যাক্স নেই। একইভাবে ঢাকার এমপি হাজী সেলিমেরও টার্ম এর ঘর খালি। নেই কোন ঠিকানা এবং ফোন ও ফ্যাক্স নম্বর।
অনেক সংসদ সদস্যের শিক্ষাগত যোগ্যতার ঘরও খালি। অথচ হাজী সেলিমের শিক্ষাগত যোগ্যতা ৯ম শ্রেণী হলেও তা উল্লেখ রয়েছে। সংরক্ষিত ৫০ জন নারী সংসদ সদস্যের অধিকাংশেরই কোন তথ্য নেই। কারো কারো দলীয় পরিচিত এবং ফোন নম্বর ছাড়া অন্য কোন তথ্য নেই। বাগেরহাট-৩ এর সংসদ সদস্য আওয়ামী লীগের তালুকদার আব্দুল খালেক এবং ময়মনসিংহ-৮ এর জাতীয় পার্টির ফখরুল ইসলাম এর  দল এবং ইমেল ছাড়া কোন তথ্য নেই। এমনিভাবে পটুয়াখালী-৩, বরিশাল-৩, কুমিল্লা-৪, চাঁদপুর-৪, নেত্রকোনা-৩, কিশোরগঞ্জ-৪, মানিকগঞ্জ-১, ঢাকা-৪, ময়মনসিংহ-৭, ৯ ও ১০ সহ কারো কারো বেশিরভাগ তথ্যই নেই। জাতীয় পার্টির ঢাকা-১ আসনের সংসদ সদস্য যুগান্তর সম্পাদক এডভোকেট সালমা ইসলামেরও স্থায়ী ঠিকানা, ঢাকার ঠিকানা, ফোন ও ফ্যাক্সের ঘর খালি রাখা হয়েছে। আওয়ামী লীগের টাঙ্গাইল-৮ আসনের সংসদ সদস্য  অনুপম শাহজাহান জয় এবং যশোর-২ এর এমপি মনিরুল ইসলামের কোন ছবি ও ডাটা নেই।
এ ব্যাপারে জানতে চেয়ে গত রাতে জাতীয় সংসসদের স্পিকারের মোবাইল ফোনে একাধিকবার কল করা হলেও তিনি রিসিভ করেননি। তবে জাতীয় সংসদের ইনফরমেশন টেকনোলজি (আইটি) বিভাগের ডিরেক্টর মো. আব্দুর রাজ্জাক বলেন, দশম জাতীয় সংসদের নির্বাচিত সংসদ সদস্যদের বিষয়ে সংসদের ওয়েবসাইটের বাংলা ভার্সনের তথ্যাবলি ঠিক আছে। তবে ইংরেজি ভার্সনে সমস্যা রয়েছে। এটি ডেভেলপ করা হচ্ছে। তবে গুরুতর ভুলের বিষয়টি শুনলাম। এ ব্যাপারে দ্রুত অ্যাকশন নিচ্ছি।
নির্বাচনের এতদিন পরও ইংরেজি সাইটের এ অবস্থা সম্পর্কে তিনি বলেন, আসলে আমাদের কাজের একটা চেইন অব অ্যাকশন আছে। এ বিষয়ে কনসার্ন সেকশন রয়েছে। অন্য সেকশন হতে আমরা তথ্যগুলো পাই। মাননীয় সংসদ সদস্যদের নামের বানানসহ বিভিন্ন বিষয়ে তথ্যগুলো কনফার্ম করে তারা (সংশ্লিষ্ট সেকশন) আমাদের সরবরাহ করেন। তারপর আমরা পদক্ষেপ নেই।

Comments
Loading...