১১ নারীর পরও ভার্জিন সালমান!

0 ১২

image_55420_0সালমানের জীবনে ১১ জন নারী আসা সত্ত্বেও নাকি তিনি কোনো নারীর শয্যাসঙ্গী হননি। তিনি এখনো নিজেকে কুমার (ভার্জিন) বলে দাবি করলেন। বলিউডের এই ব্যাচেলরের বয়স আজ ৪৮ পূর্ণ হল। জন্মদিনে ফিরে দেখা যাক সালমানের জীবনের সেই নারীদের-সঙ্গীতা বিজলানি- মিস ইন্ডিয়া সঙ্গীতা বিজলানির সঙ্গে সালমানের প্রেম ছিল আশির দশকের শেষ দিকের মুখরোচক কাহিনি। সঙ্গীতাকে বিয়ে করবেন বলে মনস্থির করেছিলেন সালমান। কিন্তু, নব্বইয়ের দশকের শুরুতেই ভেঙে যায় সম্পর্ক। এখনো সঙ্গীতা-সালমান ভাল বন্ধু। চলতি বছরের শুরুতে মহম্মদ আজাহারউদ্দিনের সঙ্গে সঙ্গীতার বিবাহ বিচ্ছেদের সময় সঙ্গীতার পাশে দাঁড়িয়েছিলেন সালমান।

সোমি আলি- সঙ্গীতার সঙ্গে বিচ্ছেদের পর সোমি আলির সাথে শুরু হয় সালমানের নতুন সম্পর্ক। তখন সদ্য বলিউডে পা রেখেছেন সোমি। সম্পর্ক ভাঙায় সালমান ক্রমশ ডুবে যাচ্ছিলেন নেশায়। সালমানের মদের নেশা, চিত্কার-চেঁচামেচি সহ্য করতে পারেননি সোমি। ছয় বছর সম্পর্ক থাকার পর ১৯৯৯ সালে সম্পর্ক ভেঙে যায় তাদের। তবে সালমানের এনজিও বিইং হিউম্যানের সঙ্গে যুক্ত সোমি।
ঐশ্বর্য রাই বচ্চন- সালমানের সবচেয়ে বিতর্কিত সম্পর্ক। হাম দিল দে চুকে সনম ছবির সেটে ঐশ্বর্যর সঙ্গে প্রেম হয় সালমানের। সেই প্রেমের পরিনতি সকলেরই জানা। বিচ্ছেদের পর ঐশ্বর্যর পরিবার সালমানের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে। অন্য প্রেমিকাদের সঙ্গে যোগাযোগ থাকলেও ঐশ্বর্যর সঙ্গে মুখ দেখাদেখি বন্ধ সালমানের।
স্নেহা উলাল- ঐশ্বর্যকে ভুলতে না পেরে তার মত দেখতে বোনের বন্ধু স্নেহা উলালের সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন সালমান। একসঙ্গে লাকি ছবিতে অভিনয় করলেও সম্পর্ক বেশিদূর এগোয়নি।
ক্যাটরিনা কাইফ- সালমানের শেষ সিরিয়াস প্রেমিকা ছিলেন ক্যাটরিনা। ২০১০ সালে ভেঙে যায় সম্পর্ক। যদিও এখনো ভাল বন্ধু তারা।
ক্লদিয়া সিয়েসলা- জানা যায় ক্যাটের সঙ্গে সম্পর্ক থাকাকালীনই জার্মান মডেল ক্লদিয়ার সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন সাল্লু। পরিবারের সঙ্গে ক্লদিয়াকে আলাপও করিয়ে দেন। তারপরই ক্যাটের সঙ্গে সম্পর্কে চিড়। ক্লদিয়ার সঙ্গে সম্পর্ক যদিও এগোয়নি সালমানের।
জরিন খান- অ্যাশের মতোই ক্যাট হ্যাং থেকেও বেরোতে পারেননি সালমান। বীর ছবিতে ক্যাটের মতো দেখতে জরিন খানকে নিয়ে আসেন সালমান। বেশ কিছুদিন সালমানের সঙ্গে সব জায়গায় দেখা গেছে জরিনকে।
মেহেক চাহাল- ওয়ান্টেড ছবিতে সালমানের সঙ্গে অভিনয় করেছেন মেহেক চাহাল। পরে সালমানের রিয়্যালিটি শোতেও অংশ নেন মেহেক। শোনা গিয়েছিল মেহেকের সঙ্গে সালমানের সম্পর্ক গড়ে উঠে ধিরে ধিরে। তবে সে সম্পর্কও টিকেনি বেশি দিন।
ডেইজি শাহ- যখনই সালমান কোনও অভিনেত্রীকে বলিউডে এনেছেন, তার সঙ্গেই জড়িয়েছে সালমানের নাম। মেন্টালের জন্য সালমানের পছন্দ ডেইজি শাহও তার ব্যতিক্রম নন।
সানা খান- ডেইজির মতোই সানার সঙ্গেও জড়িয়েছেন সালমান। মেন্টালের সেট থেকেই শুরু হয় সে সম্পর্ক।
লুলিয়া ভ্যানতুর- এখনো পর্যন্ত সালমানের শেষ প্রেমিকা হিসেবে টিকে আছেন লুলিয়া ভ্যানতুর। রোমানিয়ান মডেল লুলিয়া ভ্যানতুরের সঙ্গে তার সম্পর্ক নতুন ঝড় তুলেছে বলিউড দুনিয়ায়।

Comments
Loading...