ছাত্রলীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষ, বন্ধ ঘোষণা প্রত্যাহার

0 ১৭

chhatra leagueবরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজে আজ বুধবার দুপুরে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষের কারণে বিকেল ৪টার দিকে কলেজ অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা হলেও এক ঘণ্টা পর তা প্রত্যাহার করা হয়।

কলেজ সূত্রে জানা যায়, গত ১৯ অক্টোবর শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজে ছাত্রলীগের কমিটি ঘোষণা হয়। এতে আল ইমরানকে সভাপতি ও মো. তুহিনকে সাধারণ সম্পাদক করে ১৫ সদস্যের কমিটির ঘোষণা করা হয়। অপর সভাপতি প্রার্থী অনুপ সরকারের অনুসারীরা তখন থেকেই এই কমিটির বিরোধিতা করে আসছিলেন। পরে ওই কমিটি বাতিল ঘোষণা করে কেন্দ্রীয় কমিটি। এর জের ধরে আজ দুপুর ২টায় উভয় পক্ষ ক্যাম্পাসে পাল্টাপাল্টি মিছিল বের করলে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। একপর্যায়ে তাঁদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টাধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাঠিপেটা করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। বিষয়টি নিয়ে উত্তেজনা বিরাজ করতে থাকায় বিকেল ৪টার দিকে প্রথমে কলেজের তিনটি ছাত্রাবাস বন্ধ ঘোষণা ও সন্ধ্যার মধ্যে শিক্ষার্থীদের হলত্যাগের নির্দেশ দেয় কর্তৃপক্ষ। পরে ৪টা নাগাদ কলেজ বন্ধ ঘোষণার কথা জানান উপাধ্যক্ষ ডা. মাকসুমুল হাসান। এক ঘণ্টা পর কলেজ বন্ধ ও ছাত্রাবাস ত্যাগের নির্দেশ প্রত্যাহার করা হয়। বর্তমানে ক্যাম্পাসে বিপুলসংখ্যক পুলিশ সদস্য রয়েছেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ভাস্কর সাহা গণমাধ্যমকর্মীদের বলেন, ‘পরিস্থিতির বদল ঘটায় এবং প্রশাসন সব ধরনের নিরাপত্তার আশ্বাস দেওয়ায় কলেজ বন্ধ ও ছাত্রাবাস ত্যাগের নির্দেশ প্রত্যাহার করা হয়েছে।’

Comments
Loading...